শুক্রবার, জুন ২১, ২০২৪
ফতুল্লারাজনীতি

৩৬ ঘন্টা সময় দিলাম, যেখানে খেলতে চান খেলবো: আব্দুস সালাম

লাইভ নারায়ণগঞ্জ: ঢাকা মহানগর বিএনপির আহ্বায়ক ও বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা আব্দুস সালাম বলেছেন, ওবায়দুল কাদের সিঙ্গাপুর গিয়েছিল চিকিৎসা করাতে। এসে বিএনপিকে ৩৬ দিনের আল্টিমেটাম দিয়েছেন। কাদের সাহেব ৩৬ ঘন্টা সময় দিলাম। পুলিশ আর র‍্যাব ছাড়া আসেন, যেখানে খেলতে চান খেলবো। আমরা খেলতে চাই।

বুধবার (২৭ সেপ্টেম্বর) বিকেলে সাইনবোর্ড এলাকায় পাসপোর্ট অফিস সামনে নারায়ণগঞ্জ জেলা বিএনপি আয়োজিত সমাবেশে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত হয়ে তিনি একথা বলেন।

বিএনপির একদফা দাবি বাস্তবায়ন ও বিএনপি চেয়ারপার্সন বেগম খালেদা জিয়াকে মুক্তি দিয়ে উন্নত চিকিৎসার জন্য বিদেশে প্রেরণের দাবীতে চলমান কর্মসূচির অংশ হিসেবে ওই সমাবেশের আয়োজন করা হয়।

আব্দুস সালাম বলেন, এখনও সময় আছে৷ হাসপাতালে গিয়ে খালেদা জিয়ার কাছে হাত পা ধরে মাফ চান। তিনি মাফ করলে করতেও পারেন। খালেদা জিয়ার পা ধরে বলেন, আমি তত্বাবধায়ক সরকার দিতে রাজি। বলেন, আমাকে যেন গ্রেপ্তার হতে না হয়। নয়ত আওয়ামী লীগের চির বিদায় হবে নারায়ণগঞ্জ থেকে।

তিনি বলেন, আওয়ামী লীগ নাকি সন্ত্রাস করে না। লগি বৈঠা দিয়ে নিরীহ মানুষকে পিটিয়ে মেরে তারা নৃত্য করেছিল। তারা নাকি মানবতার দল। আওয়ামী লীগ হলো একটি সন্ত্রাসী দল। বিএনপি গণতন্ত্র ভালোবাসে বলেই বিএনপি শান্তিপূর্ণ আন্দোলন করছে।

তিনি আরও বলেন, পুলিশ আর র‍্যাব নিয়া যুদ্ধ করতে চায়। র‍্যাব পুলিশ ছাড়া আসতে চায় না। পাবলিক হয়ে আসেন। তারপর দেখেন। যদি আন্দোলনের মধ্য দিয়ে বিএনপি ক্ষমতায় আসে তাহলে এক রাতে আওয়ামী লীগ শেষ!- এটা কি আমরা বলেছি? তার এক্নভাই আছে মীর্জা কাদের। সে বলেছে তারা মানবতার ও সুষ্ঠু নির্বাচনের কথা বলে। জাতিসংঘে গিয়ে বলে আমরা শান্তি চাই। আর দেশে গুলি করে পুলিশ মানুষ মারছে। তারা সত্রাসী করছে, আর বিএনপিকে সন্ত্রাসের তকমা দেয়।

সমাবেশে নারায়ণগঞ্জ জেলা বিএনপির সভাপতি মুহাম্মদ গিয়াসউদ্দিনের সভাপতিত্বে সমাবেশে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন- বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ড. আব্দুল মইন খান।

জেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক গোলাম ফারুক খোকনের সঞ্চালনায় সমাবেশে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন- বিএনপির ঢাকা বিভাগীয় সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক বেনজীর আহমেদ টিটু, বিএনপির কেন্দ্রীয় সহ-আন্তর্জাতিক বিষয়ক সম্পাদক নজরুল ইসলাম আজাদ, সহ-অর্থনৈতিক বিষয়ক সম্পাদক মাহমুদুর রহমান সুমন, বিএনপির জাতীয় নির্বাহী কমিটির সদস্য কাজী মনিরুজ্জামান মনির, মোস্তাফিজুর রহমান ভুঁইয়া দিপু, আজহারুল ইসলাম মান্নান, নুর জাহান মাহবুব।

আরও উপস্থিত ছিলেন- মহানগর বিএনপির আহ্বায়ক এড. সাখাওয়াত হোসেন খান, সদস্য সচিব এড. আবু আল ইউসুফ খান টিপুসহ জেলা ও মহানগর বিএনপির বিভিন্ন অঙ্গসংগঠনের নেতাকর্মী।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

RSS
Follow by Email